IBA নাকি BCS ?

প্রস্তুতি

Total Views: 501

ইদানিং বিভিন্ন ফেসবুক গ্রুপগুলোতে ১টা প্রশ্ন প্রায়ই শোনা যায় ।
সেটি হল, আইবিএ নাকি বিসিএস ? আমার মনে হয় প্রশ্নটাই ভুল ! কারণ ১টা আরেকটার প্রতিদ্বন্দ্বী না, বরং সহায়ক !
,
আইবিএর প্রিপারেশন নিলে বিসিএসের ম্যাথ, ইংলিশ, ইংলিশের রাইটিং পার্ট প্রায় পুরোটা কভার হয়ে যায় । অন্য দিকে বিসিএসের প্রিপারেশন নিলে, আইবিএর ম্যাথ, ইংলিশ, রাইটিং পার্ট অলমস্ট কভার হয়ে যায় ।
সো দেখা যাচ্ছে, ১টা আরেকটাকে কমপ্লিমেন্ট করছে । আমি গত ৫ বছরে কম করে হলেও পঞ্চাশের কাছাকাছি এইরকম ক্যান্ডিডেট দেখেছি যারা আইবিএতেও পড়েছে এবং বিসিএস ক্যাডার হয়েছে ।
শুধু তাই না, বিসিএসের মেরিট লিস্টের ১টা উল্লেখযোগ্য অংশ আইবিএর গ্র্যাজুয়েট । গেল ৩৫ বিসিএসে প্রথম ১০ দশ জনের ৪-৫ জন ছিল আইবিএর। ৩৪ বিসিএসেও ৩-৪ জনের মত ছিল ।
এভাবে প্রতিটি বিসিএসেই প্রথম সারির ক্যাডারের ১টা ভালো অংশ আইবিএ থেকেই আসে । আপনি যদি এম্বিশাস এবং পরিশ্রমী হোন তাহলে দুটোই খুব ভালোভাবে এচিভ করা সম্ভব ইনশা-আল্লাহ ।
:
সো আসলে প্রশ্নটা হওয়া উচিতঃ কোনটা আগে আইবিএ না বিসিএস ?
,
এটা অবশ্য সম্পূর্ণ নির্ভর করছে, আপনার ক্যালিবার, স্ট্রেংথ এবং উইকনেসের উপর । বিসিএসের পড়াশোনা, এন্ট্রি প্রসেস একটু লেংথি, ধৈর্য এবং সময় সাপেক্ষ ।
প্রিলি, রিটেন এবং ভাইভা এই তিনটা প্রসেসের মধ্যে দিয়ে আপনাকে যেতে হবে । পাশাপাশি সিলেবাস অনেক বিশাল । ম্যাথ, ইংলিশ, বাংলা, সাধারণ জ্ঞান, বাংলা-ইংরেজী সাহিত্য, ইতিহাস, আন্তর্জাতিক বিষয়-বলী, ভূগোল ইত্যাদি । সো অনেক বেশী কিছু বিসিএসে কভার করতে হয় ।
অন্যদিকে আইবিএতে শুধু রিটেন টেস্ট আর ভাইভা । পরীক্ষা হবে শুধুমাত্র ম্যাথ, ইংলিশ, এনালাইটিক্যাল এবিলিটি রাইটিং ।
তবে আইবিএর প্রিপারেশন, প্রশ্নগুলো একটু ট্রিকি । কিত্নু স্মার্টলী আগালে খুব ১টা লেংথী প্রিপারেশন এটা না ।
বিসিএসে মুখস্তবিদ্যা ১টা বড় ভূমিকা রাখে । যারা মুখস্তবিদ্যায় বেশী স্বাচ্ছন্দ্য, তারা বিসিএসে বেশী মজা পাবেন । অন্যদিকে যারা ট্রিকি এবং এনালাইটিক্যাল থিংকিংয়ে অভ্যস্ত তাদের জন্য আইবিএর প্রিপারেশন আগে নেয়া বেটার ।
আপনার স্ট্রেংথ অনুযায়ী টার্গেট চুজ করেন । ভয় পাবার কিছু নাই । যেটা আপনার জন্য এচিভ করা আগে ইজি হবে সেটাই ধরে ধরে আগান । অন্যটাকে পাশে রাখেন ।
তবে অবশ্যই ১টাকে ফোকাসে রাখবেন । আর এগুলোর মাঝখানে মাঝখানে অবশ্য অন্যান্য যে রিক্রুটমেন্ট টেস্টগুলো আছে সেগুলোতে বসুন ।
কারণ এতে করে, আপনার মেন্টাল স্ট্রেংথ বৃদ্ধি পাবে । প্রেশার হ্যান্ডেল করা শিখবেন । এবং এক্সাম হলেও পারফর্ম করতে শিখবেন ।
মনে রাখবেন এই যাবতীয় এক্সামগুলোই আসলে মাইন্ডগেম । সো প্রিপারেশনের স্টেজগুলোতে ভয়, টেনশন, ফ্রাসট্রেশন জয় করা শিখুন ।
শুভ কামনা !
:
লেখা: Shahriar Ahmed Sadib, MBA(IBA) DU

আবেদনের শেষ তারিখঃ 2030-12-18

লোকেশনঃ বাংলাদেশ

Source: online